ঢাকা | বুধবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
এক্সক্লুসিভ

কালশী হত্যাকান্ডে বেঁচে যাওয়া ফারজানা আবারো হাসপাতালে

ইমরান খান প্রকাশিত হয়েছে: ১০-১০-২০১৬ ইং । ২২:৪৩:১১

গত ১৪ জুন মিরপুরের কালশীর বিহারী কুর্মিটোলা ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের দেয়া আগুনে মা, ভাই ও বোনসহ পরিবারের নয় সদস্যকে হারিয়ে ভাগ্যগুনে বেঁচে যান ফারজানা ও তার বাবা ইয়াসিন আলী । সেই কিশোরী এখনও মৃত্যুও সাথে পাঞ্জা লড়ছেন ।


কালশীর ভয়াবহ আগুন থেকে বেঁচে গেলেও স্বাভাবিক থাকেনি ফারজানার জীবন। আগুনে পুড়ে যাওয়ায় মরে মরে বেঁচে যাওয়ার মত অবস্থা ছিল ফারজানার। ঘটনার পর ঢাকা মেডিকেল কলেজে চিকিৎসা করানো হয় তাকে। ছিলনা বাঁচার কোন সম্ভাবনা কিন্তু,চিকিৎসকদের অপ্রান চেষ্টার ফলে মরতে মরতে  বেঁচে যান ফারজানা ।


চোখের সামনেই পরিবারের নয় সদস্যকে পুড়ে মরতে দেখেছে সে। বেঁচে ছিলেন শুধু তিনি ও তার বাবা। কিন্তু ঘটনার কয়েক দিনের মাথায় গাড়িচাপায় বাবার মৃত্যুতে একা হয়ে পড়ে ফারজানা। এরপর থেকে নিঃসঙ্গ ফারজানা বেঁচে আছে অন্যের অনুগ্রহে। সামনে তার অজানা ভবিষ্যত। ঘটনার পর অনেক আলোচনা-সমালোচনা ছিল। কিন্তু সব হারানো ফারজানাকে এখন দেখার কেউ নেই। ২০১৪ সালের ১৪ই জুন কালশী ট্র্যাজেডির কথা স্মরণ হলে নীরবে কাঁদেন ফারজানা । চাঞ্চল্যকর কালশী হত্যার বিচার চেয়েছিলেন তার পিতা ইয়াসিন। শেষ পর্যন্ত রহস্যজনকভাবে গাড়িচাপায় তার মৃত্যু হয়। অগ্নিদগ্ধ হয়েছিলেন ফারজানা নিজেও । তার শরীরের প্রায় ৩৭ শতাংশ  মরে মরে বেঁচে আছে ওই পরিবারের একমাত্র সদস্য ফারজানা।


বর্তমানে গুরুত্বর অসুস্থ হয়ে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের নিউ বিল্ডিং অষ্টম তলার ৪৬ নং বেডে  চিকিৎসাধীন রয়েছে ”দগ্ধ ফারজানা” ।


গত ১৪ জুন ২০১৪ অগ্নিসংযোগে শরীরের ৩৭ শতাংশ অংশ পুড়ে যাওয়ার পর পর্যাপ্ত চিকিৎসা না পাওয়ায় বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়েছেন ফারজানা ।  


উর্দু স্পীকিং পিপলস্ ইউথ রিহ্যাবিলিটেশন মুভমেন্টের সভাপতি মোঃ সাদাকাত খান (ফাক্কু) বাংলাপেইজকে দেয়া এক বিবৃতিতে বলেন “কালশীর ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্থদের দায় রাষ্ট্র এড়িয়ে যেতে পারে না। সব হারানো ফারজানাকে বাঁচাতে আমাদের সকলকেই এগিয়ে আসার প্রয়োজন।

বাংলাদেশে ঘটে যাওয়া বহু ঘটনায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে দাড়িয়ে তাদের সম্পূর্ন দায় বহন করেছেন। কিন্তু বাংলার ইতিহাসের জঘন্নতম কালশী হত্যাকান্ডে পরিবারের সকল সদস্যকে হারানো কিশরী ফারজানার পাশে দাড়ানো তো দুরের কথা এখন পর্যন্ত নুন্যতম সহযোগীতার হাত বাড়াননি তিনি । তার কারন আমরা জানি না” ।


তিনি আরো বলেন “ফারজানার বর্তমান অবস্থার প্রেক্ষিতে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিকট আহ্বান জানাচ্ছি যেন, তাকে বাচাতে উন্নত চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয় ,যাহাতে হতভাগিনী  কিশোরী পুনরায় স্বাভাবিক জিবনযাপন করতে পারে ”।

শেয়ার করুন
সর্বশেষ খবর এক্সক্লুসিভ
  • খালেদার মামলার সঙ্গে রাজনৈতিক সম্পর্ক নেই
  • ধনী-গরিবের প্রেম, অত:পর গরিব জেলে!
  • ফার্ম আর গোয়ালে তৈরি হয় লাচ্ছা সেমাই!
  • নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য ১০ হাজার ফ্ল্যাট
  • সবাই এখন দলের খাদেম
  • ফাঁসির আসামি না হয়েও সিলেটের খালিক ৭ বছর ফাঁসির সেলে !
  • বউকে কোটি টাকার গাড়ি উপহার দিলেন বাবলু
  • শ্রীমঙ্গলের সিরাজ শিকদার মদ মেপে মিলিয়নেয়ার!
  • মাদকের কবল থেকে মুক্তি চান উর্দুভাষীরা
  • মাদক বিরোধী মিছিলে মাদক ব্যসায়ীরা
  • আত্মসমর্পণ দলিলে সই নিয়ে প্রতারণার চেষ্টা ছিল নিয়াজীর
  • সেই সুশান্ত পাল স্ট্যান্ড রিলিজ
  • ‘আলোকিত যুবশক্তি গড়ে তুলতে কাজ করছে যুবলীগ’
  • কালশী হত্যাকান্ডে বেঁচে যাওয়া ফারজানা আবারো হাসপাতালে
  • ক্যান্সার রোগের চিকিৎসায় যুগান্তকারী ওষুধ ইমিউনিথেরাপি ড্রাগ
  • জাল সার্টিফিকেটধারী শিক্ষকদের অপসারণ দাবি
  • মাহমুদুর রহমান মান্নার মুক্তির দাবি
  • কিভাবে বুঝবেন আপনার দুধে পানি মেশানো আছে কি না?(ভিডিওসহ)
  • জেনে নিন, আপনার স্বপ্নের অর্থ কি? কোন স্বপ্ন কিসের ইঙ্গিত দেয়?
  • ৪ জেলার গ্যাস থাকবে না ৬ দিন
  • এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।